সোমবার ১৬ই জুলাই ২০১৮ বিকাল ০৩:০৮:৪৪

Print Friendly and PDF

ব্রাইট স্কুল অ্যান্ড কলেজের পুরস্কার প্রদান অনুষ্ঠানে প্রফেসর মো. মাহাবুবুর রহমান২০৪১ সালে বাংলাদেশ হবে উন্নত ও সমৃদ্ধ সোনার বাংলা


নিজস্ব প্রতিবেদক:

প্রকাশিত : সোমবার ২৫শে ডিসেম্বর ২০১৭ সন্ধ্যা ০৭:০০:২২, আপডেট : সোমবার ১৬ই জুলাই ২০১৮ বিকাল ০৩:০৮:৪৪,
সংবাদটি পড়া হয়েছে ৩৯৬ বার

মাধ্যমিক ও উচ্চমাধ্যমিক শিক্ষা বোর্ড, ঢাকা’র চেয়ারম্যান প্রফেসর মো. মাহাবুবুর রহমান বলেছেন, ২০৪১ সালে বাংলাদেশ হবে উন্নত ও সমৃদ্ধ সোনার বাংলা। তিনি বলেন, নারী শিক্ষার দ্রুত প্রসার ঘটছে। আমরা নারী শিক্ষায় অনেক এগিয়ে যাচ্ছি। যে দেশে মেয়েরা এগিয়ে থাকে সে দেশ কখনো পিছিয়ে থাকতে পারে না।

আজ ২৫ ডিসেম্বর সোমবার সকালে রাজধানীর দনিয়া বিশ্ববিদ্যালয় কলেজ প্রাঙ্গণে আয়োজিত ব্রাইট স্কুল অ্যান্ড কলেজ’র পাঠোন্নতি বিবরণী কার্ডসহ বিভিন্ন পুরস্কার প্রদান ২০১৭ অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথির বক্তব্যে তিনি এসব কথা বলেন।

ব্রাইট গ্রুপের চেয়ারম্যান আলহাজ লায়ন মাসুদ হাসান লিটনের সভাপতিত্বে অনুষ্ঠানে অন্যদের মাঝে আরও উপস্থিত ছিলেন, মাধ্যমিক ও উচ্চমাধ্যমিক শিক্ষা বোর্ড, ঢাকা’র কলেজ পরিদর্শক ড. মো. আশফাকুস সালেহীন, ঢাকা মেট্রোপলিটন পুলিশ এর উপ-পুলিশ কমিশনার (ওয়ারী বিভাগ) মোহাম্মদ ফরিদউদ্দিন, মাধ্যমিক ও উচ্চমাধ্যমিক শিক্ষা বোর্ড, ঢাকা’র উপ-সচিব মুহাম্মাদ নাজমুল হক, বিএলডি ফাউন্ডেশন এর ভাইস চেয়ারম্যান মিসেস সাঈদা হাসান দিনা, ব্রাইট স্কুল অ্যান্ড কলেজের প্রিন্সিপ্যাল মোহাম্মদ মঈদুর রহমান জেম প্রমুখ।

মাহাবুবুর রহমান বলেন, আজ আমরা একটি স্বাধীন দেশের নাগরিক। কিন্তু আমাদের এই মহান স্বাধীনতা, মহান বিজয় কিন্তু একদিনে হয়নি। এর পিছনে ধারাবাহিক আন্দোলন সংগ্রাম আর রক্তদানের কাহিনী রয়েছে। অবশ্যই আমরা এক নদী রক্তের বিনিময়ে স্বাধীনতা পেয়েছি। স্বাধীনতার জন্য ৩০ লক্ষ মানুষের রক্ত, ২ লক্ষ মা-বোনের ইজ্জত আর ১ কোটি মানুষকে দেশত্যাগ করতে হয়েছে- এমন ঘটনা পৃথিবীর কোনো দেশের ইতিহাসে নাই। তাই দেশকে জানতে হলে, দেশের মানুষকে ভালোবাসতে চাইলে, হৃদয়ে দেশাত্ববোধ জাগ্রত করতে হলে দেশের ইতিহাস, ঐতিহ্য ও সংস্কৃতিকে জানতে হবে। আর এর জন্য শিক্ষকদেরকে সঠিক ইতিহাস ছাত্র-ছাত্রীদের সামনে তুলে ধরতে হবে।

শিক্ষার্থীদের উদ্দেশ্যে তিনি বলেন, ‘তোমাদের মূল কাজ হচ্ছে লেখাপড়া করা এবং সহশিক্ষা চালিয়ে যাওয়া। তিনি আরও বলেন, পৃথিবীতে কিছু মানুষের আগমন ঘটে যারা সুন্দর স্বপ্ন দেখতে ভালোবাসেন এবং মানুষকে সুন্দর স্বপ্ন দেখান। তাঁদেরই একজন ব্রাইট স্কুলের প্রতিষ্ঠাতা মাসুদ হাসান লিটন-একজন স্বপ্নবাজ মানুষ। তাঁর হাত ধরেই প্রতিষ্ঠানটি আজ এই অবস্থানে এবং একটি সু-শৃঙ্খল ও সুন্দর ভবিষ্যত অপেক্ষমান।

সভাপতির বক্তব্যে ব্রাইট গ্রুপের চেয়ারম্যান আলহাজ লায়ন মাসুদ হাসান লিটন বলেন, ‘স্বপ্ন সেটা নয়, যা আমরা ঘুমিয়ে দেখি। স্বপ্ন সেটাই, যা আমাদের ঘুমাতে দেয় না। তাই আমরা সবাই এই স্বপ্নটাই দেখবো- যেটা আমাদের ঘুমাতে দেয় না।’

শিক্ষার্থীদের উদ্দেশ্যে তিনি বলেন, ‘আমার অনেক প্রয়োজন নেই। আমি চাই একজন- যে হবে এদেশের রাষ্ট্রপতি, প্রধানমন্ত্রী, আইজিপি কিংবা র্যা বের ডিজি। আমি স্বপ্ন দেখি- আমার সন্তানরা একদিন দেশ পরিচালনা করবে। বঙ্গবন্ধুর স্বপ্নের সোনার বাংলা গড়বে।’

তিনি বলেন, বর্তমান সময়ে আমাকে তথা গোটা শিক্ষা ব্যবস্থাকে একটি বিষয় বিব্রত করছে, তা হচ্ছে ‘প্রশ্নফাঁস’। প্রশ্নফাঁসের সঙ্গে শিক্ষাবোর্ড কিংবা শিক্ষামন্ত্রী নন, আমাদের মতো শিক্ষকরাই জড়িত এবং এর জন্য আমরাই দায়ী।

দুই পর্বে আয়োজিত অনুষ্ঠানে বার্ষিক পরিক্ষায় বিভিন্ন শ্রেণিতে মেধা তালিকায় উত্তীর্ণ ছাত্র-ছাত্রীদের মধ্যে সম্মাননা ক্রেস্ট ও বিশেষ পুরস্কার প্রদান করা হয়।