বুধবার ২৩শে মে ২০১৮ বিকাল ০৪:৫১:১৪

Print Friendly and PDF

মৈত্রী এক্সপ্রেসে বাংলাদেশি নারীকে বিএসএফের শ্লীলতাহানি


আন্তর্জাতিক ডেস্ক:

প্রকাশিত : মঙ্গলবার ২৩শে জানুয়ারী ২০১৮ সকাল ০৬:৪৮:৫১, আপডেট : বুধবার ২৩শে মে ২০১৮ বিকাল ০৪:৫১:১৪,
সংবাদটি পড়া হয়েছে ১৯৭ বার

মৈত্রী এক্সপ্রেসে

কলকাতা-ঢাকা মৈত্রী এক্সপ্রেস ট্রেনে সোমবার এক বাংলাদেশি নারীকে শ্লীলতাহানির অভিযোগ দায়ের হয়েছে পশ্চিমবঙ্গ পুলিশের কাছে। ট্রেনটির নিরাপত্তায় নিয়োজিত ভারতীয় সীমান্তরক্ষী বাহিনী-বিএসএফের এক সদস্যের বিরুদ্ধে পুলিশের কাছে অভিযোগ করেছেন ওই নারী এবং তার স্বামী। খবর বিবিসির।

ভারতের রেল কর্তৃপক্ষ বলছে, সোমবার সকালে কলকাতা স্টেশন থেকে ঢাকার উদ্দেশ্যে মৈত্রী এক্সপ্রেস রওনা হওয়ার কিছুক্ষণ পরে ওই বাংলাদেশি নারী ট্রেনের টয়লেটে গিয়েছিলেন। ট্রেনটি তখন দমদম আর ব্যারাকপুরের মধ্যে ছিল। ওই যাত্রী তার অভিযোগে উল্লেখ করেন, চলন্ত ট্রেনে টয়লেটের ভেতরে জোর করে ঢুকে তার শ্লীলতাহানি করেন এক বিএসএফ সদস্য। টয়লেট থেকে ফিরে এসে স্বামীকে ঘটনাটি জানাতেই বিষয়টি চলমান টিকিট পরীক্ষকের নজরে আনা হয় এবং সীমান্তবর্তী স্টেশন গেদেতে পৌঁছানোর পর এফআইআর দায়ের করা হয়।

ভারতের পূর্ব রেলের মুখপাত্র রবি মহাপাত্র গণমাধ্যমকে ওই ঘটনা নিশ্চিত করেছেন। রবি মহাপাত্র আরও জানান, যে স্টেশনের কাছে ঘটনা ঘটেছে, সেখানকার রেল পুলিশ এ ব্যপারে তদন্ত শুরু করেছে।

বিএসএফ কর্তৃপক্ষ বলছে, তারাও রেলের কাছ থেকে বাংলাদেশি নারীকে শ্লীলতাহানির ঘটনাটি জেনেছে। বিএসএফের দক্ষিণ বঙ্গ সীমান্ত অঞ্চলের এক জ্যেষ্ঠ কর্মকর্তা জানান, এই গুরুতর অভিযোগ পাওয়ার সঙ্গে সঙ্গেই তারা তদন্ত শুরু করেছেন।

আগে মৈত্রী এক্সপ্রেসের নিরাপত্তার দায়িত্বে রেল সুরক্ষা বাহিনী এবং রেল পুলিশ থাকলেও এখন ট্রেনটির গোটা যাত্রাপথেই নিরাপত্তার দায়িত্ব থাকে বিএসএফ।