শুক্রবার ২৫শে মে ২০১৮ সকাল ০৮:১৯:৪৬

Print Friendly and PDF

বাসে ধর্ষণের চেষ্টা, রাজধানীতে তুরাগ পরিবহন বন্ধ


নিজস্ব প্রতিবেদক:

প্রকাশিত : সোমবার ২৩শে এপ্রিল ২০১৮ বিকাল ০৪:২৭:০২, আপডেট : শুক্রবার ২৫শে মে ২০১৮ সকাল ০৮:১৯:৪৬,
সংবাদটি পড়া হয়েছে ২১৩ বার

বাসে বিশ্ববিদ্যালয় শিক্ষার্থীকে ধর্ষণ চেষ্টার ঘটনায় রাজধানীতে তুরাগ পরিবহনের বাস চলাচল বন্ধ করে দেয়া হয়েছে। গত শনিবার রাজধানীর বাড্ডায় তুরাগ বাসে উত্তরা ইউনিভার্সিটির এক ছাত্রীকে ধর্ষণ চেষ্টা করা হয়। উত্তরা ইউনিভার্সিটির শিক্ষার্থীরা জানিয়েছেন, বিষয়টি সুরাহা না হওয়া পর্যন্ত তুরাগ পরিবহনের বাস চলাচল বন্ধ থাকবে। আটক গাড়িও ফেরত দেয়া হবে না।

রবিবার বিকেলে ধর্ষণ চেষ্টার ঘটনায় অজ্ঞাতনামা তিনজনের বিরুদ্ধে গুলশান থানায় মামলা করছেন ভুক্তভোগী ছাত্রীর স্বামী। মামলায় তুরাগ পরিবহনের ওই বাসের অজ্ঞাত চালক, হেলপারসহ তিনজনকে আসামি করা হয়েছে। গণমাধ্যমকে বিষয়টি নিশ্চিত করেছেন গুলশান থানার ওসি আবু বকর সিদ্দীক।

শনিবার দুপুরে উত্তরা ৬নং সেক্টরে উত্তরা ইউনিভার্সিটির ক্যাম্পাসে আসার জন্য উত্তর বাড্ডা থেকে তুরাগ পরিবহনের একটি বাসে উঠেন। এ সময় বাসে যাত্রী ছিল মাত্র ৭-৮ জন। এ সময় পরবর্তী স্টপেজগুলোতে বাস সামনে যাবে না বলে যাত্রীদেরকে নামাতে থাকে এবং নতুন কোনো যাত্রী উঠানো বন্ধ রাখে। পরে ওই ছাত্রীর সন্দেহ হলে তিনি বাস থেকে নামতে চেষ্টা করলে বাসের হেলপার দরজা বন্ধ করে দেয়। কনট্রাক্টর তার হাত ধরে টানাটানি শুরু করে। কনট্রাক্টর-হেলপারের সঙ্গে ধস্তাধস্তির এক পর্যায়ে চলন্ত গাড়ি থেকে লাফিয়ে নেমে আসেন ওই ছাত্রী। তিনি অন্য একটি বাসে চড়ে ইউনিভার্সিটির ক্যাম্পাসে এসে বিষয়টি কর্তৃপক্ষকে জানান।