বৃহঃস্পতিবার ২২শে আগস্ট ২০১৯ দুপুর ০২:৫২:৫৯

Print Friendly and PDF

‘মাননীয় মেয়র, আমার লেখাটিও আপনার কাছে গুজব?’


ডেস্ক রির্পোট:

প্রকাশিত : মঙ্গলবার ৬ই আগস্ট ২০১৯ সন্ধ্যা ০৭:২৯:১০, আপডেট : বৃহঃস্পতিবার ২২শে আগস্ট ২০১৯ দুপুর ০২:৫২:৫৯,
সংবাদটি পড়া হয়েছে ১১২ বার

ইরতিজা শাহাদ প্রত্যয়। ৭ বছর বয়সী ছেলেটি পড়াশোনা করত ধানমন্ডি মাস্টার মাইন্ড স্কুলের প্রথম শ্রেণিতে। ডেঙ্গু জ্বরে আক্রান্ত হয়ে গত ৫ জুলাই বিকেল ৪টায় রাজধানীর স্কয়ার হাসপাতালে চিকিৎসাধীন অবস্থায় মারা যায় সে। ছেলে মারা যাওয়ার পরপরই ডেঙ্গু আক্রান্ত হন মা চাঁদ সুলতানা চৌধুরানী।

জাতীয় রাজস্ব বোর্ডের উপকরকমিশনার পদে কর্মরত সুলতানা বর্তমানে হাসপাতালে ভর্তি আছেন। কিন্তু যে ছেলে এখনও পৃথিবীটাও ঠিকমতো চিনতে পারেনি, অসুস্থ হলেও মা কীভাবে তাকে ভুলে থাকতে পারেন?

হাসপাতালে শুয়েই ছেলের মৃত্যুর কথা জানিয়ে ঢাকার মেয়রকে উদ্দেশ্য করে ফেসবুকে এক স্ট্যাটাস দিয়েছেন চাঁদ সুলতানা চৌধুরানী।পাঠকদের জন্য সুলতানার স্ট্যাটাসটি হুবহু তুলে ধরা হলো-

‘মাননীয় মেয়র, আমি প্রজাতন্ত্রের একজন কর্মচারী (উপকরকমিশনার, জাতীয় রাজস্ব বোর্ড) যার মাধ্যমে গত অর্থবছরে রাষ্ট্র ৬৬৫ কোটি টাকা রাজস্ব আহরণ করতে পেরেছে। আমি রাষ্ট্রের দেয়া গুরুদায়িত্ব পালন করেছি অত্যন্ত নিষ্ঠার সঙ্গে।

কিন্তু মাননীয় মেয়র, রাষ্ট্র কি আমার বাচ্চার নিরাপত্তা দিতে পেরেছে?

ডেঙ্গু জ্বরে আমি আমার প্রাণের অধিক প্রিয় একমাত্র ছেলেকে হারালাম। এখন আমিও ডেঙ্গু জ্বরে আক্রান্ত হয়ে গত ছয় দিন ধরে হাসপাতালের বেডে কাতরাচ্ছি। আমার মেয়ের দুই বছর বয়সে একবার ডেঙ্গু হয়েছিল। আপনি কি নিশ্চয়তা দিতে পারেন আমার মেয়ের আর ডেঙ্গু হবে না? সদ্য ছোট ভাই হারানো আমার ছোট্ট মেয়ে তার মাকেও যখন হাসপাতালের বেডে দেখছে, তখন তার মনের অবস্থা অনুধাবন করার অনুভূতি কি আল্লাহপাক আপনাকে দিয়েছেন? নাকি আমার এই লেখাটিও আপনার কাছে একটি গুজব!’