শুক্রবার ১৮ই অক্টোবর ২০১৯ রাত ০৮:৪৩:১১

Print

সপ্তাহের ব্যবধানে কুমিল্লায় পেঁয়াজের দাম দ্বিগুণ


ডেস্ক রির্পোট:

প্রকাশিত : শুক্রবার ৩০শে আগস্ট ২০১৯ বিকাল ০৫:০৪:৫৬, আপডেট : শুক্রবার ১৮ই অক্টোবর ২০১৯ রাত ০৮:৪৩:১১,
সংবাদটি পড়া হয়েছে ১৫১ বার

কুমিল্লায় পেঁয়াজের ঝাঁজ বাড়ছেই। ঈদ-উল-আযহাকে সামনে রেখে ২২ টাকার পেঁয়াজ ২৫-২৮ টাকায় বিক্রি হয়েছে। এই দাম ঈদের পরেও ছিলো। তবে এক সপ্তাহের ব্যবধানে পেয়াজের দাম দ্বিগুণ হয়েছে। বর্তমানে সে পেয়াজ বিক্রি হচ্ছে ৫০-৫৮ টাকায়। নগরীর বিভিন্ন বাজার ও উপজেলাসমূহের গুরুত্বপূর্ণ বাজারে একই চিত্র দেখা গেছে।

কুমিল্লা নগরীর চকবাজার, রাজগঞ্জ, রাণীর বাজার, বাদশা মিয়া বাজার, নিউ মার্কেট, টমছমব্রিজ, মেডিকেল কলেজ রোডসহ উপজেলার বাজারের একই হাল। এছাড়া শহরের অলিতে গলিতে বিভিন্ন মুদি দোকানে ৫৫-৬২ টাকায় পেঁয়াজ বিক্রি করতে দেখা গেছে। দেশী পেঁয়াজের ছোট ও বড় আকৃতির পেঁয়াজের একই দাম। তবে পুরাতন, নষ্ট ও কিছুটা পঁচা পেঁয়াজের দাম কম।

চকবাজার বাজার সমিতির সদস্য ওসমান গণি বলেন, ঈদের পর পাইকারি মার্কেট ৫-৬ দিন বন্ধ ছিলো, এতে পেঁয়াজের দাম বৃদ্ধি পেয়েছে। এছাড়াও নতুন মাল বস্তা প্রতি ৩০০-৩৩০ টাকা অতিরিক্ত দিতে হয়, এ জন্য দাম বেশী।

পদুয়ার বাজার বিশ্বরোডের মুদি দোকানী কাউছার মিয়া বলেন, পাইকারি বাজারে দামের উপর খুচরা দাম নির্ভর করে। বস্তা প্রতি দুই- আড়াই কেজি পেঁয়াজ বাদ যায়। এটার কারণেও দাম কিছুটা বাড়ে। বেশী দামে কিনলে বেশী দামে বিক্রি করতে হয়।

ভোক্ত অধিদপ্তর কুমিল্লা জেলা সহকারি পরিচালক আছাদুল ইসলাম বলেন, খুচরা বিক্রেতা যারা তারা অবশ্যই পাইকারি বাজারের ক্রয় রশিদ দেখাতে হবে। যদি তারা না পারে আইন অনুযায়ী ব্যবস্থা গ্রহণ করা হবে।