বৃহঃস্পতিবার ২৩শে মে ২০১৯ রাত ০১:১৯:৪২

Print Friendly and PDF

ভয়াবহ দুর্ঘটনার কবলে সানি দেওল


বিনোদন ডেস্ক:

প্রকাশিত : সোমবার ১৩ই মে ২০১৯ বিকাল ০৩:১৯:১৭, আপডেট : বৃহঃস্পতিবার ২৩শে মে ২০১৯ রাত ০১:১৯:৪২,
সংবাদটি পড়া হয়েছে ২২ বার

সানি দেওল ও তাঁর দুর্ঘটনাকবলিত গাড়ি

লোকসভা নির্বাচনের শেষ পর্যায়ের প্রচারণায় আজ সোমবার ভয়াবহ গাড়ি দুর্ঘটনার শিকার হন বলিউড তারকা সানি দেওল। ইন্ডিয়া টিভির খবর থেকে জানা গেছে, আজ সকালে গুরুদাসপুরে এক রোড শোতে অংশ নেন তিনি। বিজেপির একটি বড় গাড়িবহর নিয়ে ফতেহ বেঙ্গলে যাচ্ছিলেন। এ সময় ন্যাশনাল হাইওয়েতে সোহল গ্রাম এলাকায় উল্টো দিক থেকে আসা একটি গাড়িকে সাইড দিতে গিয়ে সানি দেওলকে বহন করা গাড়িটি জোরে ব্রেক কষে। পেছন থেকে আসা বহরের আরেকটি গাড়ি নিয়ন্ত্রণ রক্ষা করতে না পেরে সানি দেওলের গাড়িকে জোরে আঘাত করে। এ কারণে সানি দেওলের গাড়িটি সড়ক বিভাজকের ওপরে উঠে যায়। সংঘর্ষে গাড়ির চাকায় বিস্ফোরণ হয়। সানি দেওল এ সময় গাড়িতেই ছিলেন। শেষ খবর পাওয়া পর্যন্ত তাঁর শরীরে কোনো আঘাত লাগেনি। পরে অন্য একটি গাড়িতে তিনি ফতেহ বেঙ্গলের উদ্দেশে রওনা হন।

গত ২৩ এপ্রিল বিজেপিতে যোগ দেন সানি দেওল। ভারতের লোকসভা নির্বাচনে গুরুদাসপুরে এবার তিনি বিজেপির প্রার্থী। অভিনয় থেকে রাজনীতির সঙ্গে যুক্ত হয়ে নানা কারণে সমালোচনার শিকার হচ্ছেন। পাঞ্জাবের মুখ্যমন্ত্রী ক্যাপ্টেন অমরিন্দর সিং তাঁকে ‘ফিল্মি ফৌজি’ বলে সমালোচনা করেন। গত শুক্রবার গুরুদাসপুরে এক নির্বাচনী জনসভায় তিনি বলেন, ‘সানি দেওল হলেন ফিল্মি ফৌজি আর আমি রিয়েল ফৌজি। “বর্ডার” ছবিতে তিনি পাঞ্জাব রেজিমেন্টের এক জওয়ানের ভূমিকায় অভিনয় করেছেন। কিন্তু তার মানে এই নয়, তিনি আসল ফৌজি। সানি দেওল বুড়ো অভিনেতা। অভিনয় ক্যারিয়ার শেষ, তাই রাজনীতিতে এসেছেন।’

পাঞ্জাবের মুখ্যমন্ত্রী ক্যাপ্টেন অমরিন্দর সিং ১৯৬৩ সাল থেকে চার বছর ভারতীয় সেনাবাহিনীর সঙ্গে যুক্ত ছিলেন। ১৯৬৫ সালে ভারত-পাকিস্তান যুদ্ধের সময় তিনি ছিলেন শিখ রেজিমেন্টে।

এর আগে লোকসভা নির্বাচনে গুরুদাসপুর আসন থেকে নির্বাচিত হয়েছিলেন বলিউডের প্রয়াত অভিনেতা বিনোদ খান্না।