শনিবার ৭ই ডিসেম্বর ২০১৯ সকাল ০৮:১৮:১৬

Print

খালিশপুর জুট মিলের প্রকল্পপ্রধানকে গ্রেফতার করেছে দুদক


খুলনা ব্যুরো:

প্রকাশিত : বুধবার ৬ই নভেম্বর ২০১৯ সকাল ১০:২০:৪৯, আপডেট : শনিবার ৭ই ডিসেম্বর ২০১৯ সকাল ০৮:১৮:১৬,
সংবাদটি পড়া হয়েছে ৪০১ বার

খালিশপুর জুট মিলের প্রকল্পপ্রধান (জিএম) মোস্তফা কামালকে আটক করে নিয়ে যাচ্ছে দুদক।

একই প্রতিষ্ঠানের নিরাপত্তা কমান্ডারের কাছ থেকে ১০ হাজার টাকা ঘুষগ্রহণের সময় ফাঁদ পেতে খুলনার রাষ্ট্রায়ত্ত খালিশপুর জুট মিলের প্রকল্পপ্রধান (জিএম) মোস্তফা কামালকে আটক করেছে দুদক খুলনার একটি টিম।

মঙ্গলবার বেলা ২টার দিকে মিলের কার্যালয় থেকে তাকে আটক করা হয়। অভিযানে নেতৃত্ব দেন সহকারী পরিচালক শাওন মিয়া।

দুদকের সূত্র জানান, খালিশপুর জুট মিলের নিরাপত্তা প্রহরী মো. নুরুল আমিন বাবুসহ চারজনকে ভারপ্রাপ্ত গার্ড কমান্ডার পদে পদোন্নতি দেন প্রকল্পপ্রধান মোস্তফা কামাল। একই সঙ্গে পদোন্নতি বাবদ জনপ্রতি ২০ হাজার টাকা করে মোট ৮০ হাজার টাকা ঘুষগ্রহণ করেন তিনি।

কিন্তু গত ঈদুল আজহার সময় ওই পদ থেকে সরিয়ে দেয়ার ভয় দেখিয়ে তিনি পুনরায় ভারপ্রাপ্ত গার্ড কমান্ডার নুরুল আমিন বাবুর কাছ থেকে আরও ১০ হাজার টাকা ঘুষগ্রহণ করেন।

সর্বশেষ সম্প্রতি ওই পদে নতুন করে লোক নিয়োগ দেয়ার ভয় দেখিয়ে প্রকল্পপ্রধান মোস্তফা কামাল আবারও তার কাছে ২০ হাজার টাকা ঘুষ দাবি করেন।

এ ঘটনায় বাবু ক্ষুব্ধ ও হতাশ হয়ে তাকে ১০ হাজার টাকা ঘুষ দেয়ার প্রতিশ্রুতি দিয়ে এ বিষয়ে আইনানুগ পদক্ষেপ নিতে দুদক খুলনার পরিচালক বরাবর আবেদন করেন।

এ বিষয়ে দুদকপ্রধান কার্যালয়ের নির্দেশনার পরিপ্রেক্ষিতে ফাঁদ মামলা পরিচালনার মাধ্যমে তাকে আটক করা হয় বলে জানান সহকারী পরিচালক শাওন মিয়া।

দুদকের সমন্বিত খুলনা জেলা কার্যালয়ের উপপরিচালক মো. নাজমুল হাসান ঘটনার সত্যতা স্বীকার করে বলেছেন, খালিশপুর জুট মিলের প্রকল্পপ্রধান মোস্তফা কামালকে ঘুষের ১০ হাজার টাকাসহ আটক করা হয়েছে। তার বিরুদ্ধে মামলার প্রস্তুতি চলছে।